নিষেধাজ্ঞা উপেক্ষাকরে ১লা বৈশাখ উদ্‌যাপন করবে

167
জোটের সংবাদ সম্মেলনে সংগঠনের আহ্বায়ক সুলতানা কামাল
জোটের সংবাদ সম্মেলনে সংগঠনের আহ্বায়ক সুলতানা কামাল

নিষেধাজ্ঞা উপেক্ষাকরে আসন্ন ১লা পহেলা বৈশাখের অনুষ্ঠান বিকাল ৫টার পরেও উন্মুক্ত স্থানে চালিয়ে যাওয়ার ঘোষণা দিয়েছে নারী নিরাপত্তা জোটের সংগঠনের আহ্বায়ক সুলতানা কামাল।আজ মঙ্গলবার দুপুরে জাতীয় প্রেসক্লাবে পয়লা বৈশাখ ১৪২৩ উদ্‌যাপন নিয়ে নারী নিরাপত্তা জোটের সংবাদ সম্মেলনে তিনি এমন মন্তব্য করেন।সুলতানা কামাল আরো বলেন, ‘সরকার কোনো অবস্থাতেই এই ধর্মান্ধ, মৌলবাদী, সাম্প্রদায়িক শক্তিকে সামনে রেখে তাদের চ্যালেঞ্জ মোকাবিলা করতে চাচ্ছে না, তাদের মুখোমুখি দাঁড়াতে চাচ্ছে না। পক্ষান্তরে, যারা মুক্তবুদ্ধির মানুষ, তাদের ওপরে নানা ধরনের পদক্ষেপ গ্রহণ করে এই শক্তিগুলোকে অনেক বেশি প্রশ্রয় দিচ্ছে। আমরা অবশ্যই পহেলা বৈশাখে সারাক্ষণ, সর্বক্ষণ আমাদের উৎসব চালিয়ে যাব। এবং রাষ্ট্র সেখানে নিরাপত্তা দিতে আইনগত, সংবিধানগত, নীতিগতভাবে বাধ্য।সরকারের এমন সিদ্ধান্তের কড়া সমালোচনা করে তিনি বলেন, এ সিদ্ধান্ত মধ্যযুগীয় চিন্তার প্রতিফলন এবং সংবিধানকে তাচ্ছিল্য করার প্রয়াস। তাই অবিলম্বে এ সিদ্ধান্ত বাতিল করতে হবে।ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র-শিক্ষক কেন্দ্রের সামনে এক সমাবেশে সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব নাসির উদ্দিন ইউসুফ বাচ্চু বলেন, ‘স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী হঠাৎ করে ঘোষণা দিলেন যে পহেলা বৈশাখে মুখোশ ব্যবহার করা যাবে না। এটি আমাদের বিস্মিত করেছে। আমরা স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর এ বক্তব্য প্রত্যাখ্যান করছি।’সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের সভাপতি গোলাম কুদ্দুছ বলেন, ‘পহেলা বৈশাখে বিকেল ৫ টার পরে বাংলাদেশের কোথাও উন্মুক্ত স্থানে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান করা যাবে না। এ সিদ্ধান্ত আমাদের পক্ষে মানা সম্ভব নয়। আপনারা কিছু ব্যবস্থা গ্রহণ করুন তা না হলে সারাদেশের সংস্কৃতিকর্মীরা আইন অমান্য করতে বাধ্য হব।