আজ ১২ জুন,মঙ্গলবার দিবাগত রাত পবিত্র লাইলাতুল ক্বদর।

46
আজ ১২ জুন, ২৬ রমজান, মঙ্গলবার দিবাগত রাত পবিত্র লাইলাতুল ক্বদর
আজ ১২ জুন,মঙ্গলবার দিবাগত রাত পবিত্র লাইলাতুল ক্বদর

আজ মঙ্গলবার,২৬ রমজান ১৪৩৯ হিজরী । ১২ জুন ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ। ২৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ। আজ পবিত্র রমজান মাসের নাজাতের প্রথম ১০ দিনের ৬ষ্ঠ দিন।
ইসলামিক ফাউন্ডেশন বাংলাদেশ এর তথ্য অনুযায়ী ঢাকায় আজ ইফতার অনুষ্ঠিত হবে ৬টা ৫০ মিনিটে এবং আগামীকাল বুধবার ২৭ রমজান,১৩ জুন, সেহেরির শেষ সময় হবে ভোর রাত ৩টা ৩৮ মিনিটে এবং ইফতার অনুষ্ঠিত হবে ৬টা ৫০ মিনেটে।
আজ ১২ জুন, ২৬ রমজান, মঙ্গলবার দিবাগত রাতে সারাদেশে পবিত্র লাইলাতুল ক্বদর উদযাপিত হবে। এই মহিমান্বিত রাতে পবিত্র কুরআন নাজিল হয়েছিল।
আজ মঙ্গলবার দিবাগত রাত পবিত্র লাইলাতুল কদর তথা এক মহিমান্বিত রজনী।শবে কদরকে আরবিতে লাইলাতুল কদর বলা হয়। আরবি ভাষায় ‘লাইলাতুন’ অর্থ হলো রাত্রি বা রজনী এবং ‘কদর’ শব্দের অর্থ সম্মান, মর্যাদা, মহাসম্মান। এ ছাড়া এর অন্য অর্থ হলো ভাগ্য, পরিমাণ ও তাকদির নির্ধারণ করা।আজকের দিবাগত আসন্ন রাতটি ২৭ রমজানের রাত হিসেবে চিহ্নিত করা হয়েছে। হাদিস শরীফের বর্ণনা অনুযায়ী আজকের রাতটি পবিত্র লাইলাতুল কদর হওয়ার সম্ভাবনা অধিক।পবিত্র রমজান মাসের আজকের রাতে সারা দুনিয়ার ধর্মপ্রাণ মুসলমানরা পবিত্র লাইলাতুল কদর অন্বেষণ করে থাকেন।
পবিত্র রমজানের এই রজনীতে আল্লাহতাআলা,লাওহে মাহফুজ থেকে নিম্ন আকাশে মহাগ্রন্থ আল কোরআন অবতীর্ণ করেছিলেন। আল্লাহ্ সুবহানাহু তা’য়ালা সুরা ক্বদরে বলেন,‘নিশ্চয় এ কোরআন আমি লাইলাতুল কদরে নাজিল করেছি।’ অন্য আয়াতে বলেন, ‘রমজান মাস, এ মাসেই কোরআন অবতীর্ণ হয়।’ পবিত্র কোরআনে আল্লাহ তায়ালা লাইলাতুল কদরকে হাজার মাস অপেক্ষা উত্তম বলে অভিহিত করেছেন। এর অর্থ হলো, সাধারণ এক হাজার মাস তথা তিরাশি বছর চার মাস প্রতিরাত জাগ্রত থেকে নামাজ, কোরআন তিলাওয়াত ইত্যাদি নফল ইবাদত করলে যে পরিমান সওয়াব পাওয়া যাবে, এই পবিত্র সবে কদরের এক রাতের ইবাদতে তার চেয়েও হাজারগুন বেশি সওয়াব পাওয়া যাবে।
গত ১৭ই মে ২০১৮ রোজ বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় বাংলাদেশের আকাশে ১৪৩৯ হিজরি সনের পবিত্র রমজান মাসের চাঁদ দেখা যাওয়ায় গত ১৮ মে শুক্রবার ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ থেকে পবিত্র রমজান মাস তথা রোজা শুরু হয়েছে।
রোজার নিয়ত ঃ নাওয়াইতু আন আছুমাগাদাম মিন শাহরি রমাজানাল মুবারাকি ফারদ্বল্লাকা ইয়া আল্লাহু ফাতাকাব্বাল মিন্নি ইন্নীকা আন্তাস সামিউল আলীম।
ইফতারির দোয়া ঃ আল্লাহুম্মা লাকা ছুমতু ওয়া তাওয়াক্কালতু আলা রিজক্কিকা আফতারতু বি-রহমাতিকা ইয়া আরহামার রাহিমিন।

Good morning friends,guys and well-wishers ! Today is Tuesdayday 26th Ramadan 1439 AH/Hijree, 12 June – 2018 AD, 29 Jyostho -1425 BS/bangabda, Have a Nice day. ********************************************************************************************************************************************************************************************************আজ মঙ্গলবার ২৬ রমজান ১৪৩৯ হিজরী । ১২ জুন ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ। ২৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৫ বঙ্গাব্দ। আজ পবিত্র রমজান মাসের নাজাতের প্রথম ১০ দিনের ৬ষ্ঠ দিন। ইসলামিক ফাউন্ডেশন বাংলাদেশ এর তথ্য অনুযায়ী ঢাকায় আজ ইফতার অনুষ্ঠিত হবে ৬টা ৫০ মিনিটে এবং আগামীকাল বুধবার ২৭ রমজান,১৩ জুন, সেহেরির শেষ সময় হবে ভোর রাত ৩টা ৩৮ মিনিটে এবং ইফতার অনুষ্ঠিত হবে ৬টা ৫০ মিনেটে।গত ১৭ই মে ২০১৮ রোজ বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় বাংলাদেশের আকাশে ১৪৩৯ হিজরি সনের পবিত্র রমজান মাসের চাঁদ দেখা যাওয়ায় গত ১৮ মে শুক্রবার ২০১৮ খ্রীষ্টাব্দ থেকে পবিত্র রমজান মাস তথা রোজা শুরু হয়েছে।আজ ১২ জুন, ২৬ রমজান, মঙ্গলবার দিবাগত রাতে সারাদেশে পবিত্র লাইলাতুল ক্বদর উদযাপিত হবে। এই মহিমান্বিত রাতে পবিত্র কুরআন নাজিল হয়েছিল। শবে কদরকে আরবিতে লাইলাতুল কদর বলা হয়। আরবি ভাষায় ‘লাইলাতুন’ অর্থ হলো রাত্রি বা রজনী এবং ‘কদর’ শব্দের অর্থ সম্মান, মর্যাদা, মহাসম্মান। এ ছাড়া এর অন্য অর্থ হলো ভাগ্য, পরিমাণ ও তাকদির নির্ধারণ করা।আজকের দিবাগত আসন্ন রাতটি ২৭ রমজানের রাত হিসেবে চিহ্নিত করা হয়েছে। হাদিস শরীফের বর্ণনা অনুযায়ী আজকের রাতটি পবিত্র লাইলাতুল কদর হওয়ার সম্ভাবনা অধিক।পবিত্র রমজান মাসের আজকের রাতে সারা দুনিয়ার ধর্মপ্রাণ মুসলমানরা পবিত্র লাইলাতুল কদর অন্বেষণ করে থাকেন।পবিত্র রমজানের এই রজনীতে আল্লাহতাআলা,লাওহে মাহফুজ থেকে নিম্ন আকাশে মহাগ্রন্থ আল কোরআন অবতীর্ণ করেছিলেন। আল্লাহ্ সুবহানাহু তা’য়ালা সুরা ক্বদরে বলেন,‘নিশ্চয় এ কোরআন আমি লাইলাতুল কদরে নাজিল করেছি।’ অন্য আয়াতে বলেন, ‘রমজান মাস, এ মাসেই কোরআন অবতীর্ণ হয়।’ পবিত্র কোরআনে আল্লাহ তায়ালা লাইলাতুল কদরকে হাজার মাস অপেক্ষা উত্তম বলে অভিহিত করেছেন। এর অর্থ হলো, সাধারণ এক হাজার মাস তথা তিরাশি বছর চার মাস প্রতিরাত জাগ্রত থেকে নামাজ, কোরআন তিলাওয়াত ইত্যাদি নফল ইবাদত করলে যে পরিমান সওয়াব পাওয়া যাবে, এই পবিত্র সবে কদরের এক রাতের ইবাদতে তার চেয়েও হাজারগুন বেশি সওয়াব পাওয়া যাবে। রোজার নিয়ত ঃ নাওয়াইতু আন আছুমাগাদাম মিন শাহরি রমাজানাল মুবারাকি ফারদ্বল্লাকা ইয়া আল্লাহু ফাতাকাব্বাল মিন্নি ইন্নীকা আন্তাস সামিউল আলীম।ইফতারির দোয়া ঃ আল্লাহুম্মা লাকা ছুমতু ওয়া তাওয়াক্কালতু আলা রিজক্কিকা আফতারতু বি-রহমাতিকা ইয়া আরহামার রাহিমিন।

Posted by Rahee Islam on Monday, June 11, 2018

সূরা আল্ ক্বদর।